বুধবার, ২২ মে ২০২৪, ০৫:১২ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
নড়াইল সদরে দ্বিমুখী ও লোহাগড়া উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে লড়াই হবে ত্রিমুখী বাগেরহাটে মোরেলগঞ্জে জীবনের ঝুৃঁকি নিয়ে ভাঙা কাঠের পুল দিয়ে পার হচ্ছে সাধারণ মানুষ। চা শ্রমিক দিবস,মুল্লুকে চলো আন্দোলনের ১০৩ বছর। নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ ভিত্তিহীন – মাশরাফী কুকুরের দল তাকে একা পেয়ে কামড়ে ছিন্নভিন্ন করে ফেলে বাগেরহাটের শরণখোলায় গলায় ওড়না পেঁচিয়ে প্রবাসীর স্ত্রীরির আত্মহত্যা সিংড়ায় ভোক্তা-অধিকারের অভিযানে তিন প্রতিষ্ঠান কে জরিমানা  সাতক্ষীরার তালায় ট্রাক উল্টে ২ শ্রমিক নিহত আহত ১১   বাগেরহাটের রামপালে লায়ন ড.শেখ ফরিদুল ইসলামের উদ্যোগে চোখের ছানি অপারেশন ও লেন্স সংযোজন ৫০০ রোগী বাছাই লোহাগড়ায় চেয়ারম্যান প্রার্থী কে এম ফয়জুল হক রোমের নির্বাচনী অফিস ভাংচুর ও পোষ্টার ছিঁড়ে ফেলার অভিযোগ 

লক্ষীপুরের রামগতিতে আইন না মানায় ৩ ইটভাটা মালিককে তিন লাখ টাকা জরিমানা।

এ জে এম ইসমাইল হোসেন। লক্ষীপুর জেলা প্রতিনিধিঃ
  • আপলোডের সময় : মঙ্গলবার, ১৫ নভেম্বর, ২০২২

লক্ষ্মীপুরের রামগতিতে লাইসেন্সবিহীন তিনটি ইটভাটা মালিককে ৩ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। এ সময় ভাটাগুলোর চুল্লির আগুন নিভিয়ে চিমনিগুলো উপড়ে ফেলা হয়। কাঁচা ইট পানি দিয়ে নষ্ট করে দেওয়া হয়।

সোমবার (১৪ নভেম্বর) দিনব্যাপী এ অভিযান পরিচালনা করেন ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আবুল হাসনাত খাঁন।

ইটভাটাগুলো হলো- গিয়াস উদ্দিন ব্রিকস, রফিক ব্রিকস ও এমএস ব্রিকস। ভাটাগুলো চররমিজের চরআফজাল গ্রামে অবস্থিত।

উপজেলা প্রশাসন সূত্র জানায়, পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্রসহ অন্যসব কাগজপত্র ছাড়া অসাধু ব্যবসায়ীরা ইটভাটা গড়ে তুলেছে। বাংলাভাটা ব্রয়লার চিমনি ব্যবহারের কালো ধোঁয়া পরিবেশের ক্ষতি করে। এ ধোঁয়ায় মানুষও অসুস্থ হয়ে পড়ে। এ ধরনের অবৈধ ভাটা বন্ধে জেলা প্রশাসন থেকে নির্দেশনা আছে।

অর্থদণ্ডপ্রাপ্ত ভাটার মালিকরা তাদের প্রতিষ্ঠানের কোনো বৈধ কাগজপত্র দেখাতে পারেননি। পরে জরিমানার পাশাপাশি পানি দিয়ে ভাটার চুল্লির আগুন নিভিয়ে চিমনিগুলো উপড়ে ফেলা হয়। বৈধ কাগজপত্র তৈরি ও পরিবেশ অধিদপ্তরের অনুমতি নিয়ে ঝিকঝাক চিমনি ব্যবহার নিশ্চিত করলেই তারা প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম চালাতে পারবেন।

রফিক ব্রিকসের স্বত্বাধিকারী মিজানুর রহমান জানান, তার ভাটার বৈধ কোনো কাগজপত্র নেই। চররমিজ ইউনিয়নে ২৮টি ইটভাটা আছে, সবগুলোই অবৈধ।

রামগতি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) এসএম শান্তুনু চৌধুরী বলেন, অবৈধ তিন ইটভাটায় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হয়েছে। আমাদের অভিযান অব্যাহত থাকবে।

দয়া করে শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..