মঙ্গলবার, ০৫ মার্চ ২০২৪, ০৪:৩৪ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
মানিকগঞ্জের কালীগঙ্গা নদীতে সামিয়া ইসলাম স্কুল ছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার মুরাদনগরে নব-নির্বাচিত দুই সংসদ সদস্যকে সংবর্ধনা নড়াইলে ইভটিজিং এর প্রতিবাদ করায় কিশোরকে কুপিয়ে হত্যা, দুই বন্ধু আহত সাতক্ষীরা কিন্ডার গার্টেনে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত মর্গের মেঝেতে পড়ে থাকা মৃত শিশুটির পরিচয় মিলেছে। ব্রেকিং নিউজ-৪০ মরদেহ হস্তান্তর, ডিএনএ টেস্ট করা হবে ৩ জনের পিপিএম (রাষ্ট্রপতি) পদক পেলেন খুলনার সন্তান পুলিশ পরিদর্শক মনিরুজ্জামান। লোহাগড়ায় সৎ মায়ের হাতে ৩ বছরের শিশু খুন রাষ্ট্রপতি পদক পেলেন সিলেট জেলার পুলিশ সুপার’’ রামপালে স্থানীয় সরকার দিবস উদযাপন 

চোরের প্রতি অনুরোধ জানিয়ে সাবেক মেয়রের ব্যানার

মোহনগঞ্জ প্রতিনিধি,মোহনগঞ্জ,নেত্রকোণা:
  • আপলোডের সময় : মঙ্গলবার, ১৪ মার্চ, ২০২৩
 কয়েক দিন পর পর চুরি হয় বাড়িতে। নিরাপত্তাব্যবস্থা জোরদারসহ জানানো হয় থানা-পুলিশকে। এর পরও লাভ হয়নি। কিছুক্ষণের জন্য কক্ষ খালি রেখে বাইরে গেলেও ঘটে চুরির ঘটনা। অবশেষে চোরের যন্ত্রণায় অতিষ্ঠ হয়ে বাড়ির সামনে বড় ব্যানার টানিয়ে চোরের প্রতি সদয় হওয়ার অনুরোধ করেন সাবেক পৌর মেয়র।
সম্প্রতি নেত্রকোণা’র মোহনগঞ্জ পৌর শহরের ৯নং ওয়ার্ড দক্ষিণ দৌলতপুর এলাকার শেখবাড়ীর বাসিন্দা সাবেক পৌর মেয়র মো. মাহবুবুন নবী শেখ এ ব্যানার টানিয়েছেন। পরে এটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়।
সাবেক পৌর মেয়র মো. মাহবুবুন নবী শেখ প্রয়াত নন্দিত কথা সাহিত্যিক, সাহিত্যাঙ্গনে কিংবদন্তি, পাঠক মুগ্ধ করার জাদুকর,নাটক ও চলচ্চিত্র নির্মাতা হুমায়ূন আহমেদ,বাংলাদেশের কিশোর কিশোরী পাঠকদের কাছে সবচেয়ে জনপ্রিয় এবং দেশের একজন বিখ্যাত লেখক,পদার্থ ও শিক্ষাবিদ মুহম্মদ জাফর ইকবালের মামা। ব্যানারে মাহবুবুন নবী শেখ লেখেন, ‘চুরির সঙ্গে সম্পৃক্তদের সদয় অবগতির জন্য জানাচ্ছি যে, আমাদের বাড়িতে চুরি করার মতো মূল্যবান কোনো সম্পদ নেই। তাই আমাদের বাড়িতে চুরির চেষ্টা করা আপনাদের মূল্যবান সময়ের অপচয়। অপরদিকে চুরির পর ঘর গোছানো আমাদের জন্য কষ্টের কাজ। ভবিষ্যতে চুরির পরিকল্পনায় বিষয়গুলি আমলে নেওয়ার জন্য বিনীত অনুরোধ রইল।’
সাবেক এই মেয়র বলেন, মোহনগঞ্জ পৌর শহরে চুরির ঘটনা অস্বাভাবিকভাবে বেড়ে গেছে। প্রতিদিন কয়েকটা বাসায় চুরির ঘটনা ঘটছে। আমার বাসায় এই কয়েক দিনে চারবার চুরি হয়েছে। চোরেরা এতটাই কৌশলী যে একমুহূর্তের জন্য কক্ষের বাইরে গেলে সব চুরি করে নিয়ে যায়। তালা দিয়েও চুরি ঠেকানো যাচ্ছে না।
তিনি আরও বলেন, ‘পুলিশে জানিয়েও কোনো কাজ হচ্ছে না। পুলিশ চোর ধরে আদালতে পাঠালে পরদিনই জামিনে এসে আবার চুরি করা শুরু করে। চোরের কাছে আমরা অসহায়। তাই ব্যানারে লিখে চোরের কাছেই অনুরোধ জানিয়েছি।’
স্থানীয়দের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, মোহনগঞ্জ পৌর শহরে কয়েক মাস ধরে চুরির ঘটনা বেড়ে গেছে। প্রতিদিন শহরের তিন-চারটি বাসায় চুরির ঘটনা ঘটছে। শহরের বাসিন্দারা চোর আতঙ্কে দিন কাটাচ্ছে। রাতে ঘুমন্ত অবস্থায়ও ঘরে প্রবেশ করে চুরি করছে। গ্রিল কেটে ও শক্ত তালা ভেঙে চোর ঢোকে।
মোহনগঞ্জ পৌর শহরের ব্যবসায়ী বণিক  সমিতির নেতা শ্যামল মোল্লাহ বলেন, মাস খানেকের মধ্যে বাজারের চার-পাঁচটি দোকানে চুরি হয়েছে। লাখ লাখ টাকার মালামাল নিয়ে গেছে। চুরি রোধে সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও ব্যবসায়ীরা সমন্বয় করে পাহারাদার টিম করা প্রয়োজন। পুলিশ তাদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখবে এবং তারাও পুলিশের সঙ্গে তথ্য বিনিয়ম করতে পারবে। তাহলে চুরি রোধ করা সম্ভব।
মোহনগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. রফিকুল ইসলাম বলেন, ‘প্রতিটা চুরির ঘটনা খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। চুরির ঘটনায় গত কয়েক মাসে অনেক গ্রেপ্তার হয়েছে। এ ছাড়া বাজারে চুরির ঘটনায় একটি বড় চোর চক্রকে গ্রেপ্তার করে মালামাল উদ্ধার করা হয়েছে। কিছুদিন পর জামিনে এসে আবার চুরি শুরু করলে ফের তাঁদের গ্রেপ্তার করেছি।’
ওসি আরও বলেন, শহরের বিভিন্ন এলাকায় রাতের পাহারাও বাড়ানো হয়েছে। চুরি রোধে গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে। এ বিষয়ে পুলিশ আন্তরিকভাবে কাজ করছে। জনগণকেও চুরি রোধে সতর্ক থাকতে হবে।

দয়া করে শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..